FeniNews

ছাগলনাইয়ায় পোর্টল্যান্ড এগ্রোপার্কে চবিয়ানদের মিলন মেলা


মোহাম্মদ শেখ কামাল, নিজস্ব প্রতিবেদক (ছাগলনাইয়া) : পাহাড়ে ঘেরা নৈসর্গিক সৌন্দর্য্যরে মাঝে গড়ে উঠা চট্রগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়। সাগর পাড়ের এই বিশ্ববিদ্যালয়ে একেবারে প্রথম ব্যাচ থেকেই ফেনীর শিক্ষার্থীদের পদচারণায় মুখর ছিল। সেই ক্যাম্পাসে লালিত ফেনীর অনেকেই নেতৃত্ব দেয়া থেকে শুরু করে সেরা ফলাফল অর্জন করার পাশাপাশি কর্মক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠিত হয়েছেন। কর্মজীবনের ব্যস্ততায় ইচ্ছা থাকলেও ক্যাম্পাসের সেই শাটল ট্রেন আর জারুল তলায় চলে যাওয়া সম্ভব হয় না। আবার ক্যাম্পাসে গিয়ে শাটল ট্রেন আর জারুল তলা পেলেও পাওয়া যাবে না সেই বন্ধুদের, অগ্রজ আর অনুজদের। সবকিছু একই সাথে পাওয়া গেলে কেমন হয় ? নিশ্চয় মনে আনন্দের দোলা দিবে। সেই রকমই এক আনন্দের দোলা দেয়ার উপলক্ষ সৃষ্টি হয়েছিল বন্ধের দিন শুক্রবার (১৯ নভেম্বর)।
ফেনীর ছাগলনাইয়া উপজেলার মহামায়া ইউনিয়নের উত্তর যশপুর গ্রামের পোর্টল্যান্ড এগ্রোপার্কে। পোর্টল্যান্ড গ্রুপের ম্যানেজিং ডিরেক্টর, বাংলাদেশ নিউজ এজেন্সির (বিএনএ) সম্পাদক, চবি এ্যালামনাই
এসোসিয়েশনের সদস্য ও চবি লোকপ্রশাসন এ্যালামনাই এসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক বিশিষ্ট শিল্পপতি মিজানুর রহমান মজুমদারের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ও চিটাগাং ইউনিভার্সিটি এক্স স্টুডেন্ট ক্লাব ফেনীর সহযোগিতায় ও চট্রগ্রাম ইউনিভার্সিটি ৮১ ব্যাচের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের আয়োজনে সেদিন এসে জড়ো হয়েছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ৮৩ ব্যাচসহ বিভিন্ন ব্যাচের তিনশতাধিক বন্ধু আর তাদের পরিবারের সদস্যরা। বন্ধু, অগ্রজ আর অনুজদের এই মিলনমেয়ার স্থলকে এমনভাবে সাজানো হয়েছিল যা দেখে মনে হবে আছি সেই চট্রগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসেই। পোর্টল্যান্ড এগ্রোপার্কের মধ্যে সাজানো হয় বিশ্ববিদ্যালয়ের রেল স্টেশন এর আদলে মঞ্চ। সেখানে দাঁড়িয়ে আছে শাটল ট্রেনের ইঞ্জিন। পিছনের বগি অদৃশ্য। আর ব্যাগ গ্রাউন্ডের জারুল তলার সেই জারুল গাছ। আর বিশ্ববিদ্যালয়ের সেই নান্দনিক লোগো ছিল সর্বত্র। লোগো দিয়ে বানানো হয় সেলফি স্ট্যান্ড। সেই মনোরম পরিবেশে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত বিভাবে যে সময় চলে গেল তা কেউ টেরই পেলেন না।
মিলন মেলায় ঢাকা ও চট্রগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে দলবেঁধে আসেন চিবয়ানরা। সেখানে ছিল না বয়সের কোন বাঁধা। ছিল শুধুই আনন্দ আর উল্লাস। ছিল শুধুই বন্ধুত্বের আবাহত আর মিলনের আনন্দ। সবার মাঝে ছিল একই অনুভূতি। সেটি হল আমরা বার বার এভাবে মিলতে চাই।
কর্মব্যস্ত জীবনের মাঝেও সবকিছু রেখে আমরা এক মোহনায় বার বার চলে আসতে চাই। চমৎকার সব স্মৃতিচারণে প্রাণবন্ত হয়ে উঠে অনুষ্ঠানস্থল। এ সময় সবাইকে স্বাগত জানান চবিয়ান মার্কেন্টাইল ব্যাংক লিমিটেড এর সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট ও বিভাগীয় প্রধান আবু সাঈদ মোঃ মহি উদ্দিন বুলবুল।
একে একে স্মৃতিচারণ করেন, কম্পট্রোলার এন্ড অডিটর জেনারেল অব বাংলাদেশ মোহাম্মদ মুসলিম চৌধুরী, সাবেক সচিব খোরশেদ আলম চৌধুরী, বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরী কমিশনের চেয়ারম্যান মোঃ আবদুল জলিল, কৃষি মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (অব:) ওমর ফারুক চৌধুরী, স্ট্যান্ডার্ড গ্রুপের পরিচালক তোফাজ্জেল আলী তপু, সমাজসেবা অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক (অব:) হোসনে আরা চৌধুরী প্রমূখ।
সুন্দর মনোরম পরিবেশে চমৎকার একটি অনুষ্ঠান দেখে চবিয়ানরা অভিভূত হয়েছেন। তারা এমন একটি সুন্দর অনুষ্ঠানের জন্য ফেনী ও ছাগলনাইয়াবাসীর প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন। এসময় বাংলাদেশ সরকারের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্ব পালনকারী সাবেক ও বর্তমান সচিব, উর্ধ্বতন কর্মকর্তা, ব্যবসায়ী, জনপ্রতিনিধি ও রাজনৈতিক ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। দুপুরে মধ্যাহ্ন ভোজ, বিকেলে স্মৃতিচারণ, সন্ধ্যায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও রাতে ডিনারের মাধ্যমে শেষ হয় মিলন মেলাটি।



প্রকাশঃ রবিবার, ২১ নভেম্বর ২০২১, ১১:২৭ পূর্বাহ্ন



ছাগলনাইয়া উপজেলার ৫নং মহামায়া ইউনিয়নে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়া উপজেলার ৫নং মহামায়া ইউনিয়নে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান... বিস্তারিত

রেমিট্যান্স যোদ্ধাদের নেতৃত্বে গড়ে উঠা ছাগলনাইয়া প্রবাসী জনকল্যাণ সংগঠন... বিস্তারিত

পাহাড়ে ঘেরা নৈসর্গিক সৌন্দর্য্যরে মাঝে গড়ে উঠা চট্রগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়। সাগর... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়া উপজেলার ৫নং মহামায়া ইউনিয়নে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান... বিস্তারিত

কমিউনিটি পুলিশিং ডে আইজিপি পদক পেয়েছেন ফেনীর ছাগলনাইয়া উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিং... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়া পৌর শহরের শরীর চর্চা সংগঠন “ভোরের সাথী” এর উদ্যোগে “স্বাস্থ্য সুরক্ষায়... বিস্তারিত

বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্ট কর্মকর্তা-কর্মচারী কল্যাণ ট্রাস্টের দপ্তর সম্পাদক... বিস্তারিত

ফেনীর মারকায উমর রা.মাদরাসা’র ইন্টারন্যাশনাল হিফজ বিভাগে পড়ুয়া শিক্ষার্থীদের... বিস্তারিত