FeniNews

নবী’র বাহারী ইফতার মিলছে অনলাইনে


বিশেষ প্রতিবেদক>>

কারোনা মহামারীর প্রাদুর্ভাব বেড়ে যাওয়ায় চলছে সর্বাত্মক লকডাউন, ঘর থেকে বের হয়ে রাস্তায় বের হলেই আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর জেরার মুখোমুখি হতে হচ্ছে। এতসব বিপত্তির পরও মুখরোচক ইফতার কিনতে মানুষ ঘর থেকে বের হচ্ছেন। অনেকেই চাচ্ছেন স্বাস্থ্যবিধি মেনে ইফতার কিনে ঘরে ফিরতে। বিগত বছরগুলোর মত বিকিকিনির হাঁকডাক না থাকলেও বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) বিকালে ফেনী শহরের নবী রেষ্টুরেন্ট এন্ড বিরিয়ানী হাউজে নানা ধরণের মুখরোচক ইফতার কিনতে মানুষের উপস্থিতি লক্ষ করা গেছে। প্রতিষ্ঠানের মালিক মেজবাহ উদ্দিন কামাল বলেন প্রতিষ্ঠান টিকাতে আর ভোক্তাদের কথা চিন্তা করে ইফতারের আয়োজন করেছি, বিগত বছরগুলোর মত এবার বিক্রি তেমন জমজমাট না। তিনি আরও জানান, কিছু ভোক্তা অনলাইনের মাধ্যমেও তাদের পছন্দের ইফতার কিনে নিচ্ছেন। মোবাইল অ্যাপ গতি, ডেলিভারী প্রতিষ্ঠান ইজি লাইফসহ নানা মাধ্যমে ভোক্তারা পণ্য কিনছেন। 


ইফতার কিনতে আসা কয়েকজন ক্রেতা জানান, প্রতিবছর এ হোটেলটির ইফতারের আয়োজন যেনো উৎসবে পরিণত হয়। এই উৎসবে মিলনমেলা বসে রোজাদারদের। সাজানো হত বাহারি ইফতারের পসরা। উপচেপড়া ভীড় দেখা যেত মানুষের। সে চিত্র এবার না দেখা গেলেও অনেকেই স্বাস্থ্যবিধি মেনে ইফতার কিনতে আসছেন। 


ক্রেতারা জানিয়েছেন, দীর্ঘদিন ধরে এ হেটেলের ইফতার তাদের পছন্দের তালিকায়। অনেকে বলছেন, নবীর ইফতার আয়োজন ফেনীর ঐতিহ্যের অংশ হয়ে দাঁড়িয়েছে। তাই হোটেলটিও ক্রেতার কথা মাথায় রেখেই তৈরি করছে লোভনীয়-মনোহরি ইফতার। ক্রেতারাও বলছেন, শহরের অন্যান্য হোটেলের চেয়ে নবীর ইফতার খাবারের জন্য বিখ্যাত। বাহারি বিভিন্ন দামের ইফতার সামগ্রী কিনতে রোজা শুরুর প্রথম দিন থেকেই শহর ও এর আশপাশের এলাকা থেকে মানুষ আসছেন হোটেলটিতে। হোটেলটি সুস্বাদু ও মুখরোচক এবং ভিন্নতা দিয়ে ক্রেতাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করতেও সক্ষম হয়েছে। কথা হয় প্রতিষ্ঠানটির পরিচালক মেজবাহ উদ্দিন কামালের সঙ্গে। বাংলানিউজকে তিনি বলেন, খাবারে গুণগত মান বজায় রাখার কারণে প্রতি রমজানেই হোটেলে ক্রেতারা ভিড় জমান। পুরো রমজানেই বেচাকেনা থাকে জমজমাট। কেননা, বাজারের সবচেয়ে সেরা জিনিসটি হোটেলের জন্য কিনে নিয়ে আসি। আর তার সঠিক মান নিয়ন্ত্রণের পর, তা ক্রেতার কাছে পৌঁছে দিই। তিনি জানান, ইফতার আয়োজনের মধ্যে রয়েছে মাটন ও চিকেন হালিম। যা কেজি ৩৬০ টাকা ও বাটি ১০০ টাকা। এছাড়া আয়োজনে থাকা বেগুনি প্রতি পিস পাঁচ টাকা, আলুর চপ প্রতি পিস পাঁচ টাকা, ছোলাবুট প্রতি কেজি ১২০ টাকা, পেঁয়াজু প্রতি পিস পাঁচ টাকা, সবজি চপ প্রতি পিস ১০ টাকা, ডিম চপ প্রতি পিস ২০ টাকা, চিকেন জালি কাবাব প্রতি পিস ২০ টাকা, মাটন জালি কাবাব প্রতি পিস ২০ টাকা, মাটন সমুচা প্রতি পিস ১০ টাকা, নারকেল সমুচা প্রতি পিস ১০ টাকা, পাটিসাপটা প্রতি পিস ২০ টাকা, সবজি রোল ২০ টাকা, মাটন রোল ২০ টাকা, চিকেন রোল ২০ টাকা, নার্গিস কোপতা ২০ টাকা, জিলাপি প্রতি কেজি ১৫০ টাকা, পায়েস ও লাচ্ছা সেমাই প্রতি কেজি ৩০০ টাকা, চিকেন ফ্রাই প্রতি পিস ১০০ টাকা, চিকেন মাসালা প্রতি পিস ১৫০ টাকা, গ্রিল কাবাব ১টা ৩৫০ টাকা, কাচ্চি বিরিয়ানি ২০০ টাকা, চিকেন বিরিয়ানি ১৫০ টাকা, বিফ খিচুড়ি ১৩০ টাকা ও বোরহানি লিটার ১৪০ টাকা; প্রতি গ্লাস ৩০ টাকা। 


এছাড়াও রয়েছে আরও নানা আয়োজন। কথা হয় স্থানীয় গতি অ্যাপের  চীফ এক্সিকিউটিভ অফিসার রহমত উল্লাহ সুমনের সাথে তিনি বলেন, এবার অনেকেই ঘরে বসে আমাদের গতি অ্যাপের মাধ্যমে অর্ডার করে নবীর ইফতার নিয়ে যাচ্ছে। অ্যাপ এবং এবং ফেসবুক দুই যায়গাতেই আমরা গ্রাহকদের সাড়া পাচ্ছি। শিউলী নামের একজন তার ফেজবুকে লিখেছেন, ঘরে বসেই এতো সহজে নবীর ইফতার আইটেম পাবো ভাবিনি। নবী হোটেলে হরেক রকমের ইফতার তৈরি হয়। এখানের খাবার স্বাস্থ্যসম্মতও। আর সে কারণেই অনলাইনে অর্ডার করে হলেও বাসা নিয়ে এসেছি। 


সম্পাদনায়- এসএইচডি



প্রকাশঃ রবিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২১, ০৪:০৫ অপরাহ্ন



ছাগলনাইয়ায় অসহায় ও দরিদ্র শীতার্তদের মাঝে বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সহ-দপ্তর... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়ায় কুরআন তেলাওয়াত প্রতিযোগিতা ও পুরষ্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত। গত... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়ায় ওমিক্রন সংক্রমণ রোধে মন্ত্রিপরিষদের নির্দেশনা বাস্তবায়নে... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়া উপজেলায় নবনির্বাচিত ৫টি ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য ও সংরক্ষিত মহিলা... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়া উপজেলায় নবনির্বাচিত ৫জন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের শপথ গ্রহণ... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়ায় জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের ৪৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করা হয়েছে। এ... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়া উপজেলার ৫নং মহামায়া ইউনিয়নে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান... বিস্তারিত

ছাগলনাইয়া উপজেলার ৫নং মহামায়া ইউনিয়নে আনারস প্রতীকের স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান... বিস্তারিত

রেমিট্যান্স যোদ্ধাদের নেতৃত্বে গড়ে উঠা ছাগলনাইয়া প্রবাসী জনকল্যাণ সংগঠন... বিস্তারিত